বৃহস্পতিবার, ৩০ নভেম্বর ২০২৩

ব্যালন ডি’অর উঠছে কার হাতে?

প্রকাশিত: ০৫:৪৮, ০৯ মে ২০২৩ | ৭৩

ফুটবলের চলতি মৌসুম প্রায় শেষ হতে চলল। ক্লাব ফুটবলের বড় সব আসরের শিরোপাও অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে এই সময়ে। তবে এরই মধ্যে ব্যালন ডি’অরের দৌড়ে কারা আছেন, তা নিয়েই আলোচনা শুরু হয়েছে। কাতার বিশ্বকাপে সাড়ে তিন দশকের শিরোপাখরা ঘুচিয়ে তৃতীয় বারের মতো চ্যাম্পিয়ন হয় আর্জেন্টিনা। সেই মঞ্চে দলকে সামনে থেকে নেতৃত্ব দেওয়া লিওনেল মেসির ক্যারিয়ারেও পূর্ণতা এসেছে। সেই কারণে তার হাতেই এবারের ব্যালন ডি’অর উঠছে, এমনটাই মনে করছেন ফুটবল সংশ্লিষ্টদের অনেকে। তবে আরও কিছু সমীকরণ দাঁড় করিয়েছে ক্রীড়াভিত্তিক ওয়েবসাইট ‘গোল ডটকম’।

সোমবার (৮ মে) ক্রীড়াঙ্গনের সম্মানজনক পুরস্কার লরিয়াস অ্যাওয়ার্ড জিতেন মেসি। প্যারিসে আয়োজিত এই অনুষ্ঠানে আর্জেন্টাইন অধিনায়ক দ্বিতীয়বারের মতো এই পুরস্কার পেয়েছেন। এর আগে বিশ্বকাপের গোল্ডেন বল এবং ফিফার বর্ষসেরা পুরস্কারও জেতেন সর্বোচ্চ সাতবারের এই ব্যালন ডি’অর জয়ী মহাতারকা। চলতি মৌসুমে ব্যক্তিগত অর্জনের ষোলআনা পূর্ণ করতে মেসির সামনে এখন বাকি কেবল ব্যালন ডি’অর।

তবে মেসির সঙ্গে এই পুরস্কার পাওয়ার দৌড়ে থাকবেন বেশকিছু ফুটবলারও। এক্ষেত্রে ফেভারিটদের একটি তালিকা দিয়েছে ‘গোল ডটকম’। যেখানে মেসি ছাড়া আর্লিং হলান্ড, কিলিয়ান এমবাপে, ভিনিসিয়াস জুনিয়র ও করিম বেনজেমাদের মতো তারকা ফুটবলাররা রয়েছেন। তবে মেসিকেই তালিকার শীর্ষে রেখেছে ওয়েবসাইটটি। চলতি মৌসুমে এখন পর্যন্ত ক্লাব ও জাতীয় দলের হয়ে ৩৭ গোল আর ২৪টি অ্যাসিস্ট করেছেন মেসি। জাতীয় দলের হয়ে বিশ্বকাপ জিতলেও ক্লাবের হয়ে অর্জনের খাতা শূন্য। পিএসজির সম্ভাবনা আছে শুধু লিগ ওয়ান শিরোপা জয়ের। ফ্রেঞ্চ লিগ ও লিগ-আ ইতোমধ্যেই হাতছাড়া হয়ে গেছে ক্লাবটির।

ইংল্যান্ডে নিজের প্রথম মৌসুমেই বাজিমাত করেছেন নরওয়েজিয়ান স্ট্রাইকার হলান্ড। ফেভারিটের তালিকায় তাকে দ্বিতীয় স্থানে রেখেছে গোল ডটকম।  ইপিএলে সর্বোচ্চ গোলের রেকর্ডের পাশাপাশি পুরো সিজনে গোলের হাফ সেঞ্চুরি করেছেন তিনি। ম্যানচেস্টার সিটি এখন পর্যন্ত কোনো শিরোপা না জিতলেও তাদের সুযোগ আছে ট্রেবল জয়ের। ইতোমধ্যে তারা এফএ কাপের ফাইনাল নিশ্চিত করেছে। এছাড়া আর্সেনালকে টপকে ইপিএলের শীর্ষস্থানও পেপ গার্দিওলার দলের দখলে। চ্যাম্পিয়ন্স লিগের সেমিতে তারা খেলবে রিয়ালের বিপক্ষে। শেষ পর্যন্ত ট্রেবল জিতলে মেসির জায়গায় ব্যালন ডি’অর হলান্ডের হাতে দেখা যেতে পারে।

চলতি মৌসুমে জাতীয় দলের হয়ে বেশ দুর্দান্ত সময় কাটিয়েছেন কিলিয়ান এমবাপে। কাতার বিশ্বকাপে মেসিদের কাছে শিরোপা হাতছাড়া হলেও তিনি সর্বোচ্চ গোলদাতার পুরস্কার গোল্ডেন বুট জিতে নেন। জাতীয় দল ও ক্লাব মিলিয়ে মৌসুমে ৪৮টি গোল এবং ১৩টি অ্যাসিস্ট রয়েছে এমবাপের। মেসির মতো ক্লাবেও তার এই সতীর্থের দলীয় অবস্থান একই। তবে ব্যক্তিগতভাবে দুর্দান্ত মৌসুম কাটানো এমবাপেও প্রথমবারের মতো ব্যালন ডি’অর পাওয়ার দাবিদার।


মৌসুমে ২৩ গোল আর ২৫টি অ্যাসিস্ট নিয়ে ব্যালন জয়ের রেসে আছেন রিয়াল মাদ্রিদের ব্রাজিলিয়ান উইঙ্গার ভিনিসিয়াস জুনিয়রও। মাদ্রিদিস্তারা আছে ১৫তম চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জয়ের পথে। দারুণ ফর্মে থাকা ব্রাজিল সেনসেশন রিয়ালের হয়ে কোপা দেল রে, ফিফা ক্লাব ওয়ার্ল্ড কাপ ও উয়েফা সুপার কাপ জিতেছেন। ম্যানচেস্টার সিটি ও রিয়ালের মধ্যকার যেকোনো এক দলকে এবারের চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শিরোপাধারী বলে মনে করছেন অনেকে। আর রিয়াল এই শিরোপা জিততে পারলে ভিনিসিয়াসের ব্যালন ডি’অর জেতার সুযোগ তৈরি হবে। একইসঙ্গে যা হবে দীর্ঘদিন পর কোনো ব্রাজিলিয়ানের এমন কীর্তি অর্জন।

এই দৌড়ে আছেন আগের বারের ব্যালন ডি’অর জয়ী রিয়ালের করিম বেনজেমা। জাতীয় দলের হয়ে বিশ্বকাপে না খেললেও ক্লাবের হয়ে আছেন দুর্দান্ত ছন্দে। এবারও ফেভারিটের তালিকায় তার নাম রয়েছে। তালিকায় রয়েছেন নাপোলিকে ৩৩ বছরের শিরোপা-খরা কাটানো নাইজেরিয়ান স্ট্রাইকার ভিক্টর ওশিমেন। ২৪ বছর বয়সী এই ফুটবলার লিগে সর্বোচ্চ ২৩ গোল করেছেন। এছাড়া গোল ডটকমের তালিকায় রয়েছেন কেভিন ডি ব্রুইনা, রবার্ট লেভান্ডফস্কি ও মার্কাস রাসফোর্ডরা।

Mahfuzur Rahman

Publisher & Editor